Motivational Story in Bengali – অহংকারই পতনের কারণ

Motivational Story in Bengali: বন্ধুরা আমরা সবাই জানি “অহংকারই পতনের কারণ”। তাই এটা নিয়ে একটা গল্প না লিখে পারলাম না। দয়াকরে গল্পটি শেষ পর্যন্ত পড়বেন।

Motivational Story in Bengali – অহংকারই পতনের কারণ

অনেকদিন আগের কথা শ্রী হট্ট নামে এক গ্রামে বাস করত এক চড়াই পাখি। চড়াই গ্রামের এক গাছের এক কোণে ছোট্ট বাসা বেঁধে বসবাস করত।

সে খাবারের খোঁজে সারাদিন এক  জমি থেকে অন্য জমিতে ঘুরে বেড়াতে। এবং রাতের অন্ধকার নেমে এলো সে আবার তার বাসায় ফিরে আসতো। এভাবেই তার সুখে শান্তিতে দিন গুলো বেশ ভালই কাটছিল।

কিন্তু কোন এক সময় চড়াইয়ের খাবারের অভাব দেখা দিলে। কারণ বছরে কোন এক নির্দিষ্ট সময়ে চাষীরা তাদের সব ফসল কেটে ফেলে। ফলে চরাই পাখির খাবারের অনটন দেখা দিল।

এবং সেই খাবার খুঁজতে খুঁজতে একদিন জঙ্গলে চলে আসলো। চড়াই এর আগে কোনদিন জঙ্গলে আসেনি কারণ সেখানে তার জীবন ভালই কাটছিল, এবং কোনদিন তার খাদ্য ভাব দেখা  দেয়নি।

চড়াই জঙ্গলে এসে খাবার খুঁজতে লাগলো। সেই জঙ্গলে একশো কোন বাস করত,  শোকুন চড়াই কে দেখতে পেয়ে শূন্য থেকে পাক খেয়ে নিচে নেমে এসে ছো মেরে চড়াই পাখিকে তুলে নিল। চরাই তখন শকুনের পায়ের মধ্যে।

চড়াই কান্নাসুরে বলতে লাগলো, কি কুক্ষণে যে খাবারের খোঁজে জঙ্গলে এলাম।  যদি এতটুকু আমার বুদ্ধি থাকতো তাহলে আমি কয়দিন না খেয়ে কষ্ট করেই থাকতাম। কেন যে নিজের জায়গা ছেড়ে চলে এলাম? আর যাই হোক এরকম বিপদে পড়তে হতো না আমাকে।

হঠাৎ মাথায় একটা বুদ্ধি এলো,  সে শকুনকে শুনিয়ে শুনিয়ে বলতে লাগলো,  আমি যদি আমার গ্রামে থাকতাম তাহলে আমাকে ধরার ক্ষমতা হত না এই বুড়ো শকুনের। এমনকি আমার জায়গায় যদি ও আমার সঙ্গে লড়াই করতে যেত তা হলেও আমার সঙ্গে পেরে উঠতো না কোনোমতেই। 

Motivational Story in Bengali

চড়াই পাখির মুখে এ কথা শুনে শকুন ভীষণ রেগে গেল। চিৎকার করে বললো এত বড় আস্পর্ধা? যত বড় মুখ নয় তত বড় কথা?  বল কোথায় তোর জায়গা। চড়াই তখন তার আত্মবিশ্বাস ফিরে পেয়ে বললো,“ চাষীদের খেতে।”  শকুন তখন আবার চড়াই কে জিজ্ঞাসা করলো সেটা কোথায় আবার কোন দিকে ?  

চড়াই তারপরে শকুনকে রাস্তা দেখিয়ে চাষীদের খেতে নিয়ে গেল। শকুন তারপর চরাই কে ছেড়ে দিল এবং বলল, পালা তুই দেখি তোকে আমি ধরতে পারি কিনা ?  

চড়াই তখন মাথা থেকে একটা বুদ্ধি বের করলো।  চড়াই মাঠের মধ্যে পাথরের চাই খুঁজতে লাগলো, সে জানতো যে চাষিরা জমিতে নতুন বছরে ফসলের জন্য লাঙ্গুল চালিয়েছে ফলে ক্ষেতের মাটি উঁচু হয়ে আছে ,  এখানে খুঁজলে পাথরের চাই পাওয়া যাবে।

চড়াই একটা পাথরের চাই দেখে তার উপর বসে  পরল, এবং চিৎকার করে শকুনকে বলল এবার লড়বে এশো দেখি কার গায়ে কত শক্তি ?  চড়াইয়ের একথা শুনে শকুনের মাথা গরম হয়ে গেল। 

শকুন রাগে গড়গড় করতে করতে ঝড়ের বেগে উড়ে আসলো   চড়াই এর দিকে। চড়াই তখন বুদ্ধি করে পাথরের আড়ালে লুকিয়ে পরল।

শকুন তখন তার গতি সামলাতে না পেরে পাথরের বুকে আছৱে  পরল। পাথরের আঘাতে শকুনের বুক ফেটে চৌচির হয়ে গেল। এবং এক আঘাতে সে চির নিদ্রায় ঘুমিয়ে পরল। 

 “এর থেকেই বোঝা যায় যে অতি অহংকারী পতনের  কারণ হয়ে দাঁড়ায়।”

Motivational Story in Bengali: আমাদের এই গল্পটি পড়ার জন্য ধন্যবাদ। গল্পটি ভাল লাগলে অবশ্যই আপনি আপনার বন্ধুদের সঙ্গে শেয়ার করে দেবেন নমস্কার।

আরো পড়ুন: Bengali Motivational Story – স্বপ্ন

Leave a Comment